ক্যান্সারে আক্রান্ত মাহিনের জীবন বাঁচাতে এগিয়ে আসুন

পঞ্চগড় অফিস : বয়স সবে মাত্র ১২। এই বয়সে তার মাঠে ছুটে বেড়ানোর কথা। অথচ সেই মাহিন আজ শয্যাশয়ী। শরীরে বাসা বেধেছে মরণব্যাধী অষ্টোরিও ক্যান্সার। দিনে দিনে মাহিনের বাবা পঞ্চগড় জেলার বোদা উপজেলার পৌর সদরের হলপাড়া গ্রামের অটো ড্রাইভার জাহাঙ্গীরের অভাবের সংসার তিনিই একমাত্র উর্পাজনক্ষম ব্যক্তি। ক্যান্সারের চিকিৎসা করানোর মতো সামথ্য নেই তার। তাহলে কী একটি জীবন এভাবে ঝড়ে যাবে।

শেষ সম্বল দিয়ে একমাত্র ছেলের চিকিৎসা করাচ্ছেন তিনি। সব শেষ করে আজ তিনি অসহায়, তাই ছেলে জীবন বাচাঁতে সমাজের বিত্তবানদের প্রতি আবেদন জানিয়েছেন সাহায্যের জন্য। বোদা পাইলট স্কুল এন্ড কলেজের ৬ষ্ঠ শ্রেণির ছাত্র মাহিন। খেলাধুলা ভালবাসে সে। একদিন ক্রিকেট খেলার সময় পেয়েছিলে হাটুতে ব্যথা। সেই থেকে শুরু, উপজেলা জেলা পেড়িয়ে রংপুরের বিভাগীয় হাসপাতালে চিকিৎসার পর ডাক্তার জানিয়েছেন হাটু থেকে শুরু করে সারা শরীরে ছড়িয়ে গেছে ক্যান্সার। ছেলের মুখের দিকে তাকিয়ে দরিদ্র বাবা চেষ্টা করে যাচ্ছেন ছেলের জীবন বাঁচাতে।

সর্বশেষ তিনি ছেলেকে নিয়ে যেতে চান পাশ্ববর্তী দেশ ভারতে। কিন্তু ভারতে চিকিৎসা করাতে যে অর্থের প্রয়োজন সেই সামর্থ্য নেই তার। ইতিমধ্যে তিনি খোজ নিয়ে জেনেছেন ভারতে চিকিৎসার জন্য প্রয়োজন প্রায় ৫ লক্ষাধিক টাকার প্রয়োজন।

তাই মাহিনকে বাঁচাতে আকুল জানিয়েছেন তার মা-বাবা। একদিকে সন্তানের চিকিৎসা, অন্যদিকে সংসারের ব্যয়ভার দিয়ে অসহায় হয়ে পড়েছেন তিনি। এমতাবস্থায় মাহিনের চিকিৎসার জন্য প্রধানমন্ত্রী সগ সকল হৃদয়বান ও বিত্তবান ব্যক্তির আন্তরিক সহযোগীতা কামনা করেছেন। চিকিৎসায় সহযোগীতা দিতে সরাসরি যোগাযোগ করুন মাহিনের বাবা মোঃ জাহাঙ্গীর ০১৮২১৬১৮১২০ নম্বরে।

মা-মেয়েকে মাথা ন্যাড়া করে দেয়া কাউন্সিলর বরখাস্ত

নিউজ ডেক্স : গত বছর বগুড়ায় ধর্ষশের শিকার ছাত্রীর ঘটনাটিকে ধামাটাপা দিতে মা-মেয়েকে ন্যাড়া করে আলোচনায় এসেছিলেন বগুড়ার পৌর কাউন্সিলর মারজিয়া হাসান রুমকি। ধর্ষণের শিকার হওয়ার পর ধর্ষককে বাঁচাতে বিচার প্রার্থী মা-মেয়েকে নির্যাতন করে মাথা ন্যাড়া করে দিয়েছিলেন। সেই ন্যাক্কার জনক ঘটনায় দায়েরকৃত মামলার অভিযোগপত্রভুক্ত আসামিও ছিলেন রুমকি।

রুমকিকে বরখাস্তের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন স্থানীয় সরকার বিভাগের উপসচিব আবদুর রউফ মিয়া। বুধবার বিকেলের পর রুমকিকে বরখাস্তের বিষয়টি জানাজানি হয়। স্কুল ছাত্রী ধর্ষণের দায়ে অভিযুক্ত মামলার মূল আসামি তুফান সরকারের স্ত্রীর বড় বোন হলেন বগুড়ার আলোচিত এই কাউন্সিলর মারজিয়া হাসান রুমকি।

জেলা প্রশাসনের স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক সুফিয়া নাজিম গণমাধ্যমকে বলেন, ‘বগুড়া পৌরসভার নারী কাউন্সিলর মারজিয়া হাসানকে স্থানীয় সরকার আইনের ২০০৯-এর ৩১ উপধারা (১) প্রদত্ত ক্ষমতাবলে স্থানীয় সরকার বিভাগ থেকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। ইতোমধ্যে চিঠিটি হাতেও পেয়েছেন মারজিয়া।

স্থানীয় সরকার বিভাগের পাঠানো সেই চিঠিতে ছাত্রী ধর্ষণ মামলার প্রাথমিক অবস্থা তুলে ধরা হয়েছে। বরখাস্তের কারণ হিসেবে বলা হয়, মারজিয়া বগুড়া পৌরসভার ২ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলরের দায়িত্ব পালন করলে সেখানকার পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারী এবং সেবাপ্রত্যাশী সাধারণ জনগণের মধ্যে আতঙ্ক ও চরম ভীতির সঞ্চার হতে পারে।

প্রসঙ্গত, ভালো কলেজে ভর্তির করিয়ে দেয়ার কথা বলে ২০১৬ সালের ১৭ জুলাই এক ছাত্রীকে তুলে নিয়ে যান তৎকালীন বগুড়া শহর শ্রমিক লীগের আহ্বায়ক তুফান সরকার (পরে তাকে বহিস্কার করা হয়)। এরপর সেই বাড়িতেই ধর্ষিত হন ওই ছাত্রী। বিষয়টি প্রকাশ হলে কাউন্সিলর রুমকি ২৮ জুলাই ওই মেয়ে এবং বিচার চাওয়া তার মাকে বাড়িতে তুলে নেন। তাদের নির্যাতনের পর মাথা ন্যাড়া করে দেন রুমকি। এরপর আইনশৃঙ্খলা বাহিনী তাদের উদ্ধার করে। আটক করা হয় মারজিয়া হাসান ও তুফান সরকারকে। লোমহর্ষক এই ঘটনায় তুফান সরকার, মারজিয়া হাসানসহ মোট নয়জন কারাগারে আছেন।

গাইবান্ধায় ড্রাম চিমনিসহ শতাধিক অবৈধ ইটভাটা

ছাদেকুল ইসলাম রুবেল,গাইবান্ধা : গাইবান্ধায় ম্যানেজ করে চলছে ৫টি ড্রাম চিমনিসহ শাতাধিক অবৈধ ইটভাটা।কৃষি জমি ও বসতি এলাকার এসব অবৈধ ইটভাটার কালো ধোয়া উড়ছে।ইট পোড়াতে ভাটা গুলিতে কয়লার পরিবর্তে ব্যবহার করা হচ্ছে কাঠ।এসব ইট ভাটাগুলির কালো ধোয়ায় পরিবেশ বৈচিত্র মারাত্মক হুমকির মুখে থাকা অতিষ্ঠ এলাকাবাসী বার-বার প্রশাসনের কাছে অভিযোগ করলেও নাম মাত্র-দু-একটি ইটভাটায় ভ্রাম্যমান মোবাইল … Read moreগাইবান্ধায় ড্রাম চিমনিসহ শতাধিক অবৈধ ইটভাটা

মাদারীপুর থেকে প্রায় কোটি টাকা নিয়ে লাপাত্তা বায়রা লাইফ ইনসিওরেন্স কোম্পানী: অফিসে তালা, দিশেহারা গ্রাহকরা

জাহিদ হাসান,মাদারীপুর জেলা প্রতিনিধি: মেয়াদ পূর্ণ হওয়ার পরেও চার বছর ধরে মাদারীপুরে বায়রা লাইফ ইনসিওরেন্স কোম্পানীর প্রায় এক হাজার গ্রাহক তাদের মূল টাকা ও লভ্যাংশ ফেরত পাচ্ছেন না। টাকার জন্য তারা ঢাকা ও ফরিদপুর অফিসে বারবার যোগাযোগ করেও কোনো ফল পাননি। গ্রাহকদের তোপের মুখে এরই মধ্যে অফিস বন্ধ করে গা ঢাকা দিয়েছে কর্মকর্তা-কর্মচারিরা। প্রায় কোটি টাকা নিয়ে উধাও হয়ে যাওয়ায় দিশেহারা গরীব অসহায় পরিবারগুলো। আর মাদারীপুর জেলা প্রশাসন আইনগত ব্যবস্থা নেয়ার আশ্বাস দিয়েছেন।

বায়রা লাইফ ইনসিওরেন্স কোম্পানী ২০০৪ সালে মাদারীপুরের রাজৈরে একটি শাখা খুলে কার্যক্রম শুরু করে। এরপর নানা লোভ-লালসা দেখিয়ে জেলা সদরের বড় খালপাড়, মাথা ভাঙ্গা, ঘটকচর, সমাদ্দার, রাজৈরের আলমতস্তার, মজুমদারকান্দি, দুর্ঘাবুদ্ধিসহ বিভিন্ন এলাকায় প্রায় এক হাজার গ্রাহকদের কাছ থেক মাসিক ১০০ টাকা কিস্তির ভিত্তিতে ১০ বছর মেয়াদে টাকা গ্রহণ করে আসে। ২০১৪ সালে তাদের কিস্তির মেয়াদ পূর্ণ হয়ে যায়। তারপর থেকে মূল টাকা ও লভ্যাংশের কোটি টাকা দাবি করে গ্রাহকরা। কিন্তু চার বছর পার হলেও আজোও মূল টাকাই ফেরত পাচ্ছে না। এরই মধ্যে রাজৈর শাখার দায়িত্ব প্রাপ্ত ম্যানেজার তুষার মজুমদার পালিয়েছে। টাকার জন্যে অন্য কর্মচারীদের চাপ দেয়ায় তারাও অফিসে তালা ঝুলিয়ে চলে গেছে। এতে অনিশ্চত হয়ে পড়েছে প্রায় কোটি টাকা। দুঃচিন্তায় দিশেহারা এসব গ্রাহকরা।

কোম্পানীর মাঠ পর্যায়ের কর্মীরা স্থানীয়রা হওয়ায় তাদের হেনস্থা করছে গ্রাহকরা। এসব মাঠ কর্মীরাও ফরিদপুর ও ঢাকা অফিসে ধর্ণা দিয়েও কোন ফল হচ্ছে বলে দাবী করেন। তারাও টাকা আদায়ে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে বলে জানান।

শাখা ম্যানেজার তুষার মজুমদারের বাড়ী রাজৈর উপজেলায়। তিনি গ্রাহকদের সাথে প্রতারণা করে বিদেশ চলে গেছে। তার পরিবারের লোকজন দাবী করেন, অল্পদিনের মধ্যেই তিনি দেশে ফিরে গ্রাহকদের টাকা পরিশোধ করবে।

মাদারীপুর জেলা প্রশাসক ওয়াহিদুল ইসলাম জানিয়েছেন, গ্রাহকরা আইনগত ব্যবস্থা চাইলে সহযোগিতা করা হবে। তিনি সবাইকে সচেতন হয়ে টাকা লগ্নি করার আহবান জানান।

শুধু বায়রা লাইফ ইনসিওরেন্সই নয়, মাদারীপুরে এমন আরো ১০ থেকে ১৫টি কোম্পানী চাটুকারি বিজ্ঞাপন দিয়ে বীমা ও ইনসিওরেন্স ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে। এদের কার্যক্রম প্রশাসনকে খতিয়ে দেখার দাবী সচেতন মহলের।

চট্টগ্রামে ৬৩ হাজার ইয়াবা সহ নগদ ১০ লাখ টাকা উদ্ধার

চট্টগ্রাম ব্যুরো: চট্টগ্রাম মহানগরী থেকে ৬৩ হাজার ইয়াবা ও নগদ ১০ লাখ টাকা উদ্ধার করেছে নগর গোয়েন্দা পুলিশ। বায়েজিদ থানার ওয়াজেদিয়া এলাকায় একটি ট্রাকে তল্লাশি চালিয়ে এগুলো উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে ট্রাকের চালকসহ পাঁচজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এরা হল ট্রাকের মালিক মো. মিজানুর রহমান (৩৬), মো.জসিম উদ্দিন (২৮), ট্রাকের চালক কাজী আবুল বাশার (২৫), মো. আবদুল্লাহ আল মামুন (৪০) ও আবু তাহের (৩৮)। তারা সবাই কুমিল্লা জেলার বাসিন্দা।
ইয়াবা ও নগদ টাকাসহ পাঁচজনকে গ্রেফতারের পর গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে নগর পুলিশের সদর দপ্তরে আয়োজিত প্রেস ব্রিফিং এ এসব তথ্য জানানো হয়। নগর পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার আমেনা বেগম সাংবাদিকদের জানান, মাদক প্রতিরোধে পুলিশের তৎপরতায় কৌশল পরিবর্তন করছে মাদক ব্যবসায়ীরা। গোপন খবরের ভিত্তিতে গত সোমবার রাতে এ অভিযান পরিচালনা করা হয়। উদ্ধারকৃত ইয়াবা বান্দরবান থেকে কুমিল্লা জেলার নিমসরে নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল বলে জানিয়েছে পুলিশ। এরই অংশ হিসেবে কেবল মাদক পরিবহনের জন্যই তৈরি করা হচ্ছে বিশেষ ট্রাক। ট্রাকের মালিকরাই মাদক পরিবহন ও বিক্রির সঙ্গে জড়িত। তিনি বলেন, এর আগেও অনেক ইয়াবার চালান উদ্ধার করা হয়েছে। কিন্তু সোমবার যে ট্রাক থেকে ইয়াবা উদ্ধার হয়েছে সেটি সম্পূর্ণ ভিন্ন। কারণ ট্রাকটি কেবল মাদক পরিবহনের জন্য তৈরি করা হয়েছে।
সম্মেলনে জানানো হয়, সোমবার রাতে বায়েজিদ থানার ওয়াজেদিয়া এলাকায় অক্সিজেনগামী ট্রাকটি আটক করা হয়। এ সময় ট্রাকের মালিক, চালকসহ তিন জনকে আটক করে। পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে তারা জানান, ট্রাকের পেছনে নিচের অংশে বিশেষভাবে তৈরি একটি বাক্সে ৬৩ হাজার ইয়াবা রয়েছে। তাদের দেওয়া তথ্য মতে তল্লাশি চালিয়ে এসব ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। পরে আটক তিন জনের দেওয়া তথ্যে অভিযান চালিয়ে নগরীর কোতোয়ালী থানার জেলা পরিষদ ভবনের সামনে থেকে অপর দুই সহযোগী মো.আবদুল্লাহ আল মামুন (৪০) ও আবু তাহেরকে গ্রেফতার করে পুলিশ। তাদের দেহ তল্লাশি করে ১০ লাখ টাকা পাওয়া যায়।

শ্রীলঙ্কাকে ফাইনালিস্ট ধরে ছাপানো হয়েছিলো স্টিকার!

নিউজ ডেক্স : নিদাহাস ট্রফিতে নিজের চার ম্যাচের তিনটিতে জিতে ফাইনাল নিশ্চিত করেছে ভারত। আরেক দলের ফাইনাল নিশ্চিত জন্য অপেক্ষা করতে হয়েছিল বাংলাদেশ শ্রীলঙ্কার ম্যাচের উপর। যে দিলই জিতবে ফাইনাল খেলবে। তবে তার আগেই আয়োজরা শ্রীলঙ্কাকে ফাইনালিষ্ট ধরে ভারত-শ্রীলঙ্কার মধ্যমার ফাইনাল ম্যাচের স্টিকার ছেপেছে।

গাজর চাষে লাভবান চাষীরা

ছাদেকুল ইসলাম রুবেল,গাইবান্ধা ঃ গাজর এক প্রকার মূল জাতীয় সবজি। রোগ বালাই কম, স্বল্প শ্রম, উৎপাদন বেশি ও ভাল দাম পাওয়ায় গাজর আবাদ করে লাভবান হচ্ছেন পলাশবাড়ীর চাষীরা। আর গাজরের স্থানীয় চাহিদা মিটিয়ে ঢাকাসহ বিভিন্ন জেলায় সরবরাহ করা হচ্ছে পলাশবাড়ী উপজেলার গাজর। আর কৃষি বিভাগ বলছে, গাজরের আবাদ লাভজনক হওয়ায় এবার লক্ষ্যমাত্রা অতিক্রম করেছে। আগামীতে … Read moreগাজর চাষে লাভবান চাষীরা

খেসারি চাষে আগ্রহ হারাচ্ছে কৃষক

ছাদেকুল ইসলাম রুবেল,গাইবান্ধা ঃ চাহিদা থাকা সত্বেও উপজেলায় খেসারি ডাল উৎপাদনে আগ্রহ হারাচ্ছে কৃষকরা। এক যুগ আগেও খেসারি ডাল উৎপাদনে উপজেলার বেশ সুনাম ছিল। গ্রাম বাংলার সাধারণ মানুষ এক সময় প্রতি দিনের খাবারে অংশ হিসেবে খেসারি ডাল খেতেন। খেসারির ছাতু ভাতের বিকল্প হিসেবে ব্যবহার হতো।উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অফিস সূত্র জানায়, চলতি মৌসুমে উপজেলায় খেসারির চাষের … Read moreখেসারি চাষে আগ্রহ হারাচ্ছে কৃষক

ফেসবুক সংক্রান্ত হেল্পলাইন ০১৭৬৬৬৭৮৮৮৮

ফেসবুকের অপরাধ সম্পর্কে আপনি সরকারের সহযোগীতা পেতে ব্যবহার করতে পারের হেল্পলাইন ০১৭৬৬৬৭৮৮৮৮ নম্বরটি। পৃথিবীর সবচেয়ে জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম হলো ফেসবুক। প্রতিদিন প্রতি ১২ সেকেন্ডে একজন করে নতুন ব্যবহারকারী ফেসবুক ব্যবহার শুরু করেন। বাংলাদেশেও ব্যতিক্রম নয়। ফেসবুকে অপরাধ ঘটাও খুব নিয়মিত ব্যাপার। এই অপরাধ দমনের জন্যই সরকার ০১৭৬৬৬৭৮৮৮৮ নম্বরটিকে হেল্প লাইন করেছে।

বৃহস্পতিবার জাতীয় সংসদে এই নম্বরটি যে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যে কোনো অপরাধ দমনের হেল্প লাইন, তা জানিয়েছেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনায়েদ আহমেদ পলক। সামাজিক ফেসবুকে যে কোনো অপরাধ আপনার দৃষ্টিগোচর হলে সাথে সাথে এই নম্বরে অভিযোগ দায়ের করতে পারবেন।

সরকার দলীয় সাংসদ নবী নেওয়াজ সংসদে অভিযোগ করে জানান, ফেসবুকে তার একটি পরিচয় রয়েছে। কিন্তু তার নামে আরো কিছু ভূয়া পরিচয়ও আছে। ফলে তিনি নানা রকম ঝুটঝামেলায় পড়েন। তিনি জানতে চান, এ থেকে বাঁচার কোনো উপায় আছে কিনা।

নবী নেওয়াজের কথার জবাবে ০১৭৬৬৬৭৮৮৮৮ নাম্বারটির কথা জানান পলক। একই সাথে তিনি জানান, এই নম্বরে অভিযোগের পরও যদি কোনো উপকার না পাওয়া যায়, তবে সরকারের সাইবার সিকিউরিটি ফোর্সের সাথে যোগাযোগ করা যেতে পারে।

নষ্ট ডিম সহজেই চেনার ‍উপায়

ঠাৎ অতিথি আপ্যায়নে, সকালের নাস্তায় ডিমের কোন জুড়ি নেই। তাই কেনার আগেই যাচাই করে নেয়া জরুরি ডিম নষ্ট কি না, কেননা একটা নষ্ট ডিম আপনার পুরো রান্নার আয়োজনকেই বরবাদ করে দিতে যথেষ্ট। আর শুধু কেনার আগেই নয় ফ্রিজে রাখা ডিমও কিন্তু নষ্ট হয়ে গেলো কি না তাও দেখা নেয়া জরুরি। সাধারণত আমরা ডিম কিনে এনে … Read moreনষ্ট ডিম সহজেই চেনার ‍উপায়